Home / খেলাধুলা / প্রতিশোধের নেশায় ফুসছে ঘানা, সতর্ক উরুগুয়ে

প্রতিশোধের নেশায় ফুসছে ঘানা, সতর্ক উরুগুয়ে

কাতার বিশ্বকাপের গ্রুপ ড্র হওয়ার পরই যেন রক্ত টগবগ করে ফুটছিল ঘানার। এবার যে উরুগুয়ের সঙ্গে ২০১০ সালের হিসাব চুকানোর পালা। ১২ বছর আগে প্রথম আফ্রিকান হিসেবে তাদের বিশ্বকাপ সেমিফাইনালে খেলার সুযোগ ছিনিয়ে নিয়েছিল উরুগুয়ে, নির্দিষ্ট করে বললে লুইস সুয়ারেজ।

অতিরিক্ত সময়ে ডোমিনিক আদিয়িহার গোলমুখে ছুটতে থাকা হেড তিনি হাত দিয়ে ঠেকান এবং ঘানা ওই পেনাল্টি মিস করার পর টাইব্রেকারে জিতে সেমিফাইনালে ওঠে উরুগুয়ানরা। ঘানা এফএ প্রেসিডেন্ট কুর্ট ওকরাকু বলেন, কাতার বিশ্বকাপের ড্রর পরই তার মনে এসেছিল: ‘এবার প্রতিশোধের সময়।’

ঘানার কিছু ভক্তরা মনে করেন, উরুগুয়েকে বিদায় করেও জোহানেসবার্গের ওই দুঃস্মহ স্মৃতি মুছে ফেলা যাবে না। ম্যাচের আগের দিন সুয়ারেজ ওই হ্যান্ডবল নিয়ে প্রশ্নের মুখোমুখি হয়ে বললেন, তিনি ওই ঘটনার জন্য ক্ষমা চাইতে নারাজ।

সুয়ারেজকে জোর করে তো ক্ষমা চাওয়াতে পারবে না, আপাতত উরুগুয়েকে বিদায় করে তাকে অবসরে যেতে বাধ্য করাই মূল লক্ষ্য আফ্রিকান দেশটির। শেষ ষোলো বাজি রেখে শুক্রবার বাংলাদেশ সময় রাত ৯টায় আল ওয়াকরাহতে মুখোমুখি হচ্ছে ঘানা ও উরুগুয়ে।

দুইবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়নদের হারাতে পারলেই নকআউটে ঘানা, ২০১০ সালের পর প্রথমবার। কাতারে প্রথম দুটি ম্যাচেই পাঁচ গোলের রোমাঞ্চে পর্তুগালের কাছে হারলেও দক্ষিণ কোরিয়াকে হারিয়ে ‘এইচ’ গ্রুপের দ্বিতীয় স্থানে তারা।

উরুগুয়েকে হারাতে পারলে শেষ ষোলো নিশ্চিত, এমনকি ড্র করলেও গ্রুপ টপকাবে ঘানা। সেক্ষেত্রে চাইতে হবে দক্ষিণ কোরিয়া যেন জিততে না পারে। কোরিয়ানরা জিতলে যেতে হবে সমীকরণে। তবে হারলে বিদায় নিশ্চিত।

অন্যদিকে ১ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শেষে থাকা উরুগুয়েকে এই ম্যাচ জিতলেই হবে না, তাকিয়ে থাকতে হবে দক্ষিণ আফ্রিকা-পর্তুগাল ম্যাচের দিকে। কোরিয়ানরা যেন জিততে না পারে, সেই কামনা করতে হবে উরুগুয়ানদের।

নয়তো ২০ বছরে প্রথমবার গ্রুপ পর্বেই বিদায় নিতে হবে ফার্নান্দো সান্তোসের দলকে। সবশেষ ২০০২ সালের বিশ্বকাপে নকআউটে দর্শক ছিল তারা। এই বিশ্বকাপে কোনও গোলের দেখা পায়নি উরুগুয়ে, সেই লজ্জার মুখোমুখি হওয়া ঠেকাতে ভিন্ন কিছুই করতে হবে তাদের। ঘানা কিন্তু তৈরি প্রতিশোধের আগুনে তাদের ছারখার করে দিতে।

Check Also

মেসিকে রাগালে আরও ভালো খেলে: হুয়ান রোমান রিকেলমে

কাতার বিশ্বকাপে সেমিফাইনালের আগে ডাচদের কোচ লুইস ফন গাল বলেছিলেন, ‘আর্জেন্টিনার খেলোয়াড়দের পায়ে বল না …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *